ঝিকরগাছায় যথাযোগ্য মর্যাদায় স্বেচ্ছাসেবক লীগের জাতীয় শোক দিবস পালন

ঝিকরগাছা(যশোর)প্রতিনিধি:বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্যদিয়ে যশোরের ঝিকরগাছায় হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৬তম শাহাদতবার্ষিকী ও জাতীয় শােক দিবস পালন করা হয়েছে। দিবস উপলক্ষে শোক র‍্যালি, বঙ্গবন্ধুর ম্যুরালে পূষ্পার্ঘ অর্পণ, আলোচনা সভা, দোয়া মাহফিল ও খাবার বিতরণের আয়োজন করে উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ।

১৫ আগস্ট (রবিবার) সকাল ৮টার দিকে উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের আহ্বায়ক আবুল কালাম আজাদের নেতৃত্বে সকলে কালো ব্যাজ ধারণ করে একটি শোক র‍্যালি বের হয়। র‍্যালিটি শহরের যশোর-বেনাপোল মহাসড়ক প্রদক্ষিণ করে।

পরে উপজেলা মোড়স্থ বঙ্গবন্ধু ম্যুরালে যশোর-২ আসনের এমপি বীর মুক্তিযোদ্ধা মেজর জেনারেল (অব.) অধ্যাপক ডাক্তার নাসির উদ্দিনকে সঙ্গে নিয়ে পুষ্পার্ঘ অর্পণ করে স্বেচ্ছাসেবক লীগ পরিবার। এ সময় উপজেলা চেয়ারম্যান মনিরুল ইসলাম, ভাইস চেয়ারম্যান সেলিম রেজা,
যশোর জেলা যুবলীগের সহ-সভাপতি ও ঝিকরগাছা উপজেলা যুবলীগের সম্মানিত সদস্য মোঃ আজাহার আলী। যুবলীগ নেতা শামীম রেজাসহ স্বেচ্ছাসেবক লীগের সকল নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

দুপুর ২টার দিকে ঝিকরগাছা বিএম হাইস্কুল মাঠে অবস্থিত ক্রিকেট একাডেমি প্রাঙ্গনে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। পরে মিলাদ মাহফিল শেষে পথশিশু, গরিব ও অসহায় মানুষের মাঝে প্রধান অতিথি হিসেবে খাবার বিতরণ করেন এমপি নাসির উদ্দিন।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক আজহারুল ইসলাম লাবু, কামরুজ্জামান কামাল, সৈয়দ রাসেল, শামছাজ্জাহা লোটাস, সদস্য হোসেন মোহাম্মদ ওমর শরীফ সাকী, জাহিদুল ইসলাম, মাহমুদ মুকুল, ফারুক হোসেন, এনামুল হক মনি,শাহাদৎ হোসেন, প্রিন্স আহমদ, সাজ্জাদুল জামান রনি,আল আমিন, শাহজামাল শিশির, মিজানুর রহমান, ইবাদ আলীসহ প্রশান্ত বিশ্বাস, শাহিনুর রহমান শাহিন,সোহেল হাউলাদার, সিপন সরদার, জাহিদ,বাপ্পি,সোহেল রাজু,শামিন, শাকিল, আবু কালাম প্রমুখ।

এমপি নাসির উদ্দিন বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম না হলে আমরা স্বাধীন বাংলাদেশ পেতাম না। আমরা আত্মমর্যাদা নিয়ে বেঁচে থাকতে পারতাম না। ১৯৭৫ সালের আজকের এই দিনে আমরা অকৃতজ্ঞ বাঙালি আমাদের জাতির পিতাকে সপরিবারে হত্যা করেছি। তার মৃত্যুতে বাংলাদেশ অন্ধকারে নিমজ্জিত হয়েছিল।

তিনি আরোও বলেন, বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সংগ্রাম ও ত্যাগের মধ্য দিয়ে বাংলাদেশকে আন্তর্জাতিক পরিমন্ডলে একটি মর্যাদাশীল রাষ্ট্রে পরিণত করতে সক্ষম হয়েছেন।