মাদক সন্ত্রাস নির্মূলে কঠোর ভূমিকায় শালিখা থানা পুলিশ

টাইম ভিশন 24
নাজমুল হক শালিখা থেকে :  বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনী সন্ত্রাস, ইভটিজিং, নারী নির্যাতন ও মাদকের বিস্তার অবরোধে চ্যালেঞ্জ হিসেবে কাজ করে যাচ্ছেন। তারই ধারাবাহিকতায়, শালিখা থানার পুলিশ উপজেলায় মাদক, ইভটিজিং, নারী নির্যাতন ও সন্ত্রাস নির্মূলে কঠোর ভূমিকায় থেকে অক্লান্ত ভাবে কাজ করে চলেছেন । বাংলাদেশ পুলিশ মাদক, ইভটিজিং, নারী নির্যাতন ও সন্ত্রাস বিষয়ে খুবই স্বোচ্ছার। তারপরেও মাদক কারবারি ও সন্ত্রাসীরা অভিনব কৌশলে তাদের অপরাধ কর্মকাণ্ড চালিয়ে যাচ্ছে। তবে, শালিখার থানার ওসি মোঃ তরীকুল ইসলামের নেতৃত্বে বিট পুলিশিং এর চৌকস অফিসার গন বিচক্ষণতার সাথে প্রতিনিয়ত মাদকবিরোধী অভিযান পরিচালনা করায়, এলাকায় মাদকের ব্যবহারকারিদের থেকে শুরু করে মাদক কারবারি ও সন্ত্রাসীরা জিরো টলারেন্সে চলে এসেছে । শালিখা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও আড়পাড়া ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ আরজ আলী বিশ্বাস এ বিষয়ে বলেন – থানার চৌকস পুলিশ অফিসার গন, গ্রামপুলিশ ও কমিউনিটি পুলিশিং কমিটির সদস্যরা যদি তাদের দক্ষতা ও আন্তরিকতার সাথে কাজ করে,তবে সমাজ থেকে সকল প্রকার অপরাধ রোধ করা সম্ভব হবে।দৈনিক ভোরের কাগজের মাগুরা জেলা প্রতিনিধি, কবি ও সাহিত্যিক দীপক চক্রবর্তী বলেন- সন্ত্রাস , মাদক, ইভটিজিং ও বাল্যবিবাহের বিরুদ্ধে থানা পুলিশের পাশাপাশি গ্রামপুলিশ ও কমিউনিটি পুলিশের সদস্যদের কাজে লাগাতে হবে। পাশাপাশি উপজেলার বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষকে ঐক্যবদ্ধ ভাবে মাদক ও সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে সোচ্চার হতে হবে। তাহলে শালিখা থেকে মাদক সন্ত্রাস নির্মূল করা সহজ হবে।এ ব্যাপারে শালিখা থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ তরীকুল ইসলাম সাংবাদিকদের বলেন- বাংলাদেশ পুলিশ মাদক ও সন্ত্রাস নিয়ন্ত্রণে আপোষহীন। মাদক, ইভটিজিং, নারী নির্যাতন সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ নিয়ন্ত্রণে সরকার জিরো টলারেন্সের ঘোষণা করেছেন। মাদকের আগ্রাসন থেকে যুব সমাজকে মুক্ত করার জন্য সরকার বদ্ধপরিকর। সমাজকে মাদক মুক্ত করার জন্য বাস্তবমুখী পরিকল্পনার আওতায় নানামুখী পদক্ষেপ সরকারি ভাবে গ্রহণ করা হয়েছে। মাদক বিশ্বজুড়ে মানবজাতির জন্য বিপদের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। বাংলাদেশেও এ বিপদ থেকে মুক্ত নয়। তারই ধারাবাহিকতায় আমাদের দায়িত্ব প্রাপ্ত চৌকস পুলিশ অফিসারগন উপজেলার সাত ইউনিয়নে গ্রাম পুলিশ ও কমিউনিটি পুলিশিং কমিটির সদস্যদের সহযোগীতায় মাদক সন্ত্রাস, ইভটিজিং প্রতিরোধে নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছে। শুধু তাই নয়, বাল্যবিবাহ রোধেও পুলিশের ভূমিকা অতুলনীয়।