টাইম ভিশন
নিজস্ব প্রতিবেদক:  যশোরে বাউল সম্রাট লালন ফকিরের ১৩০তম তিরোধান দিবস পালিত হয়েছে। জেলা শিল্পকলা একাডেমির উদ্যোগে ১৭ অক্টোবর ২০২০ সন্ধ্যায় লালনগীতির সুরমুর্ছণায় এ দিবস পালিত হয়। জেলা শিল্পকলা একাডেমির মিলনায়তনে এ অনু’ানের শুরুতে সূচণা বক্তব্য রাখেন একাডেমির সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. মাহমুদ হাসান বুলু। জেলার বাউল শিল্পী মজিদ বাউল, জাহাঙ্গীর হোসেন, পরিতোষ বাউল, পপি খাতুন, মকবুল বাউল, আজিজুল ইসলাম আজিজ, রুবেল বাউল, রিতা রায় তাদের স্বভাবসুলভ ভং্ধিসঢ়;গতে লালনগীতি পরিবেশন করেন। তারা গেষে শোনান ‘ঘর বেধেছে ভাল ঘরামি’, ‘ভবে কেউ কারো নয় দুখের দুখি’, ‘ক্ষম অপরাধ ওহে দিন নাথ’, ‘কারে দেবো দোষ; নাহি পরের দোষ’, ‘কে বানাইলো এমন রঙমহল খানা’, ‘দিল দরিয়ার মাঝে দেখলাম আজব কারখানা’, ‘আর কি দেখা হবে এ জীবনে’, ‘এমন সমাজ কবে সৃজন হবে’, ‘আর আমারে মারিস নে মা, ‘এমন মানবজনম আর কি হবে’, ‘সাধু সঙ্গ ভাল সঙ্গ আমার হইলো কই’, ‘বিনা কাজে ধন উপার্জন কে করিতে পারে’, ‘দয়াল আমি ওই চরনের দাসি হতে চাই’, ‘চাতক বাঁচে কেমনে বরিষন বিনে’, ‘না জেনে মন মজে পিরিতে’, ‘চাঁদের গায়ে চাঁদ লেগেছে’ গানগুলি। শেষে সমবেত পরিবেশনায় ‘মিলন হবে কত দিনে আমার মনের মানুষের সনে…’ মেতে ওঠেন বাউলশিল্পীসহ উপস্থিত দর্শকবৃন্দ।