অস্পষ্ট তুমি : রুম্পা রায়

অস্পষ্ট তুমি
রুম্পা রায়
তোমাকে কতোবারই দূর থেকে ছুঁয়েছি,তবু কাছ থেকে
দেখা বা ছোঁয়ার সাহস আমার কখনোই হয়ে ওঠেনি।

কেনো জানি তোমার এলো কেশ,পায়ের নুপুর,
তোমার সমস্ত অজানা অস্তিত্ব জুড়ে
আমি আমাকে খুঁজে পাই।
তোমার অস্তিত্বরা আমাকে টানে তোমার কাছে
আর বলে,”আয়,তোকে ভালোবাসাবাসির গপ্পো শোনাবো”এক অজানা কণ্ঠে।

সেই লোভে মাঝেমধ্যেই ছুটে গেছি তোমার সন্ধানে,
কিন্তু তোমাকে খুঁজে পাওয়ার সৌভাগ্য আমার হয়নি।

একবার অনেক দূর থেকে তোমায় দেখেছিলাম,
সেই অস্পষ্ট তুমিকে নিয়ে যে,কতো স্বপ্ন সাজিয়েছিলাম আমি!!!
ভেবেছিলাম অস্পষ্ট তুমিকে স্পষ্টতায় রূপ দিয়ে,
কোনো একদিন আমার ভালোবাসার মালায়
বেঁধে ফেলবো তোমাকে দারুণ সুখে।

দ্বিতীয় বারের মতো যখন তোমাকে
কাছ থেকে দেখেছিলাম আমার অশ্রু ভরা চোখ দিয়ে,
তখন তুমি আরও বেশি অস্পষ্ট।
লাল বেনারসি পরা লক্ষ্মী প্রতিমার মতো
সেই অস্পষ্ট তুমিকে আজও আমি,
কখনো কখনো মনের অজান্তে খুঁজে ফিরি।