কালো রাত্রি: কাজী লীনা আরাফাত

গদ্য কবিতা
১৯৭৫ এর ১৫ আগষ্ট, শ্রাবনের মেঘে ঢাকা আকাশ, বাঙ্গালী জাতি তখনো জানতো না তাদের সামনে কি কলংকিত অধ্যায় রচিত হতে যাচ্ছে, যারা এই স্বাধীন বাংলাদেশের বিরুদ্ধে বার বার বিরোধিতা করে ছিলো আর তুমি তাদের, তোমার উদারতা দিয়ে ক্ষমা করেছিলে, তুমি বলে ছিলে কোন বাঙ্গালী আমার বুকে গুলি করতে পারবে না তাদের হাত কাঁপবে কিন্তু তুমি জানতে না, বা বিশ্বাস করো নি, কুচক্রী কাপুরুষের দল তোমার এই উদারতার সুযোগ নিয়ে তোমাকে সহ তোমার পুরো পরিবারকে সুন্দর পৃথিবী থেকে চিরবিদায়ের নীলনকশা বুনে চলেছে…………….।।

সেদিন রাতে তোমার ধানমন্ডির ৩২ নম্বর বাড়ীতে তুমি, তোমার প্রাণ প্রিয় সহধর্মিণী, তোমার ছেলেরা শেখ জামাল, শেখ কামাল, শেখ রাসেল ছিলো,, ছিলো তোমার পুত্র বঁধুরা, তোমার সহোদর ভাই শেখ নাসের সহ তোমার সহচরেরা, তোমার দেহরক্ষী এবং গৃহের কাজে সহায়তাকারী বকুল সহ সবাই তখন নিদ্রামগ্ন …………….

রাত গভীর থেকে গভীরতর হলো, হঠাৎ ভয়ানক বুলেটের আওয়াজ প্রতিটি কক্ষ থেকে ভেসে আসতে থাকলো সাথে চাপা আর্তনাদ……….মুহূর্তের মধ্যে থরে -থরে পড়ে রইলো নিথর দেহ গুলো………… তোমার ছোট্ট রাসেল ও রেহাই পায়নি ঐ নরপশুদের হাত থেকে,, তুমি বললে ” তোরা আমাকে কোথায় নিয়ে যেতে চাস ” এর পরেই ব্রাশফায়ারের শব্দ, সব শেষ………।। কুচক্রী কাপুরুষের দল থামলো না, তুমি গড়িয়ে সিঁড়িতে পড়ে গেলে, তোমার বুকের তাজা রক্তে ভেসে গেল বাংলা মায়ের বুক আর পাশেই পড়ে রইলো তোমার পবিত্র নিথর দেহ ।। নির্লজ্জ হায়না গুলো হেসে বললো, মিশন সাকসেসফুল।।

বাংলার আকাশে অংকিত হলো একটি কালো অধ্যায়………..জাতি হারালো, তাদের প্রাণপ্রিয় হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে ।