ইসরায়েলি গোয়েন্দার সঙ্গে ভিপি নুরের বৈঠক,

ডেস্ক নিউজঃ বিদেশে থাকা গণঅধিকার পরিষদের সদস্য সচিব নুরুল হক নুরের সঙ্গে ইসরায়েলের গোয়েন্দা সংস্থা মোসাদ-এর সদস্য মেন্দি এন সাফাদির হাস্যোজ্জ্বল একটি ছবি নিয়ে তোলপাড় শুরু হয়েছে। তার সঙ্গে দুবাইয়ে ডাকসুর সাবেক ভিপি নুর বৈঠক করেছেন বলে জানা গেছে। মেন্দি এন সাফাদি ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর লিকুদ পার্টিরও সদস্য।

বাংলাদেশ ইসরায়েলকে রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দেয়নি এবং কূটনৈতিক কোনো সম্পর্কও নেই। ফিলিস্তিন-ইসরায়েল দ্বন্দ্বে বাংলাদেশ সব সময় ফিলিস্তিনের পক্ষে অবস্থান নিয়েছে। দুদিন আগেও জাতিসংঘে ফিলিস্তিনের সাধারণ মানুষের পক্ষে ভোট দিয়েছে বাংলাদেশ। এমন পরিস্থিতিতে বাংলাদেশের নাগরিক হয়ে ইসরায়েলি গোয়েন্দার সঙ্গে ছবি তুলে নুরুল হক নুর কি দেশের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছেন কিনা?

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রশ্ন উঠেছে, ভিপি নুর কি পবিত্র ওমরাহ পালনের কথা বলে বিদেশ ঘুরে বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থার এজেন্টদের সঙ্গে দেশবিরোধী ষড়যন্ত্র করছেন? সাফাদির সঙ্গে ওই ছবি প্রকাশ পাওয়ার পর অনেকেই প্রশ্ন করেছেন, ভিপি নুর পবিত্র ওমরাহ পালনের কথা বলে দেশ ছাড়লেও মুসলিমবিরোধী ইসরায়েলির সঙ্গে বৈঠক করলেন কেন?

সম্প্রতি নুরুল হক নুর কাতার যান। সেখান থেকে তিনি দুবাই যান। সেখানে তিনি দেশ থেকে ব্যাংকের বিপুল অঙ্কের টাকা আত্মসাৎ করে পালিয়ে যাওয়া এক ব্যবসায়ীর সঙ্গে বৈঠক করেন। এরপর ফেসবুক লাইভে এসে নানা ধরনের উসকানিমূলক কথা বলেন। সম্প্রতি তিনি দুবাই থেকে সৌদি আরব যান। সেখানে তিনি ওমরাহ পালন করেন। এরই মধ্যে মেন্দি এন সাফাদির সঙ্গে তার ছবি প্রকাশ পেল। ওই ছবিতে দেখা যায়, একটি ভবনের সামনে হাসিমুখে দাঁড়িয়ে রয়েছেন মেন্দি এন সাফাদি ও ভিপি নুর।

বিদেশে গিয়ে নুর ফেসবুক লাইভে এসে সরকার, মন্ত্রী-এমপি ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী নিয়ে উসকানিমূলক বক্তব্য ছড়াচ্ছেন।

ভিপি নুরের সঙ্গে মেন্দি এন সাফাদির ছবি দেখে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে অনেকেই মন্তব্য করেছেন, দেশে আলেম-ওলামার জন্য নুর কান্নাকাটি করেন; কিন্তু ক্ষমতায় যেতে ইসরায়েলের শরণাপন্ন হন। অনেকে বলছেন, চরম সাম্প্রদায়িক বক্তৃতা দেওয়া নুর স্রেফ পাবলিসিটির জন্য ধর্মের কথা বলেন।