বাস চাপায় নানী ও নাতনী নিহত।

টাইম ভিশন ডেস্কঃযশোরের ধর্মতলা রেল ক্রসিংয়ে বাস চাপায় দুই জন নিহত হয়েছেন।নিহতরা সম্পর্কে  নানী-নাতনী। এ ঘটনায় আরও অন্তত ২ জন আহত হয়েছেন। বৃহসপতিবার দুপুরে দূর্ঘটনাটি ঘটে। স্থানীয়রা বাসটিকে আটক করলেও পালিয়ে গেছে চালক ও তার সহকারী। দূর্ঘটনায় নিহতরা হলেন যশোর সদর উপজেলার নরেন্দ্রপুর গ্রামের গফুর মোড়লের স্ত্রী জাহানারা বেগম (৬০) ও সিরাজসিংহা গ্রামের সুজায়েত সরদারের মেয়ে সুমাইয়া খাতুন (২২)। নিহতরা সম্পর্কে নানী-নাতী। এ ঘটনায় সিরাজসিংহা গ্রামের লিটন সরদারের মেয়ে তুলি (১২) ও ভ্যান চালক একই গ্রামের সাধন দাসের ছেলে উত্তম দাস আহত হয়েছেন। আহতদের যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। যশোর ট্রাফিক পুলিশের ইনচার্জ মাহবুব কবির জানান, চাঁচড়া থেকে ভ্যানে করে নাতনীদের নিয়ে শহরে আসছিলেন জাহানারা বেগম। ভ্যানটি ধর্মতলা রেলক্রসিংয়ের খাদে পড়ে উল্টে যায়। এসময় দ্রুত গতির একটি যাত্রীবাহী বাস তাদের চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যান নানী-নাতী। স্থানীয়রা আহত দু’জনকে উদ্ধার করে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করেছেন। এদিকে দূর্ঘটনার সাথে সাথেই সাতক্ষীরা থেকে আসা যাত্রীবাহী বাসটির চালক ও তার সহকারী পালিয়ে যায়। পরে বাসটি জব্দ করে যশোর পুলিশ লাইনে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।